১৬, জুন, ২০১৯, রোববার | | ১২ শাওয়াল ১৪৪০

বৃদ্ধ বাবা-মাকে অবহেলা করলেই এবার হাজতবাস!

আপডেট: জুন ১৩, ২০১৯

বৃদ্ধ বাবা-মাকে অবহেলা করলেই এবার হাজতবাস!

বৃদ্ধ বয়সে যখন সন্তানের সঙ্গ সবচেয়ে প্রয়োজন, সেই সময় বাবা-মাকে পরিত্যাগ করা বা তাঁদের ওপর অত্যাচার করার মতো ঘটনা যেন সামাজিক ব্যাধিতে পরিণত হয়েছে। কড়া হাতে ব্যবস্থা না নিলে এই সমস্যার সমাধান সম্ভব নয় বলে মনে করছে বিহারে নিতীশ কুমারের সরকার।

বৃদ্ধ বাবা-মার দেখাশোনা না করা এবার জামিন অযোগ্য অপরাধ হিসেবে গণ্য হবে বিহারে। মঙ্গবার বিহারের মুখ্যমন্ত্রী নিতীশ কুমারের নেতৃত্বে মন্ত্রিসভার বৈঠকে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। বৃদ্ধ অসহায় বাবা-মার দেখাশোনা না করা বা তাঁদের ঘর থেকে বের করে দেওয়ার মতো অপরাধ কড়া হাতে দমন করা প্রয়োজন বলে জানিয়েছেন নিতীশ কুমার।

বৃদ্ধ বয়সে যখন সন্তানের সঙ্গ সবচেয়ে প্রয়োজন, সেই সময় বাবা-মাকে পরিত্যাগ করা বা তাঁদের ওপর অত্যাচার করার মতো ঘটনা যেন সামাজিক ব্যাধিতে পরিণত হয়েছে। কড়া হাতে ব্যবস্থা না নিলে এই সমস্যার সমাধান সম্ভব নয় বলে মনে করছে বিহারে নিতীশ কুমারের সরকার। তাই এই অপরাধটিকে জামিন-অযোগ্য ধারায় অন্তর্ভুক্ত করা হল বিহারে। দোষী প্রমাণিত হলে সন্তানের কারাদণ্ড হবে।

এছাড়াও এই মন্ত্রিসভার বৈঠকে পুলওয়ামায় সিআরপিএফ-এর বাসে হামলার ঘটনায় বিহারের শহিদের পরিবারের একজনকে চাকরি দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। এই সিদ্ধান্তের জেরে ভাগলপুরের রতন কুমার ঠাকুর এবং বেগুসরাইয়ের পিন্ট‌ু কুমার সিং-এর পরিজনদের একজন করে সরকারি চাকরি পাবেন।