১লা এপ্রিল, ২০২০ ইং, বুধবার
৮ই শাবান, ১৪৪১ হিজরী

সিকদার আমিনুল হকের ‘সুপ্রভাত হে বারান্দা’

প্রকাশিত: ১২:৪৩ অপরাহ্ণ , ডিসেম্বর ২৬, ২০১৯

সিকদার আমিনুল হকের ‘সুপ্রভাত হে বারান্দা’

সিএনআই ডেস্ক: 

সুপ্রভাত, হে বারান্দা! দেখলে তো কবি বেঁচে আছে।
পাদরিও চায় না মরে। খাদ্যগুণ, শর্করার ছলে
রোজ ধর্ম-কর্ম খায় একদলা! কাল মাঝরাতে
দেখেছি অদ্ভুত স্বপ্ন। এক হ্রদে, আমার নৌকায়
আমি চার-জোড়া রূপসীকে পেয়েছি একাই!
গায়িকা মেয়েটি ছোটো, দেহ-মিলনের মতো নয়;
তবে পৃথুলার গন্ধ বেশ সুস্থ! স্তন ভালো যার
ডেনিশ মেয়েটি হাসে, ‘তা হলে কোথায় চললাম?’
কেন জাহান্নামে!- শোনো খুকি, গীতা পড়ো নাই বুঝি?
আমরা করবো কাজ, ফল আছে ঈশ্বরের হাতে!

সুপ্রভাত, হে বারান্দা! দেখলে তো আজও স্বপ্ন দেখি।
শীতের রাত্রির ক্রুটি, মৃত্যু আসে; নিরক্ষর ভূত-
বিছানাটা ছোটো হয়, বেশ ঠান্ডা, কবরের মতো।
তখন খুলতে থাকে কলকব্জা, শরীরের খিল;
আজকাল বিড়ালেরা চলে যায়! রোজ দুধ দিতে
পাঁচটি টাকার কম লাগে না তো? পেনশন শেষ।
একা জন্মাবার ভুল সকলের, তাই থাকি একা!
তথাপি ভোরেই উঠি! খাসা! সুপ্রভাত, হে বারান্দা!
ইঁদুরের মতো নয়, ফ্লানেলের সস্তা জামাটায়
দেখলে কেমন ঘুম ঘুমালাম, গতকাল রাতে?


সিএনআই’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।