৬ই এপ্রিল, ২০২০ ইং, সোমবার
১৩ই শাবান, ১৪৪১ হিজরী

দুর্ঘটনায় পা হাড়ানোর পরেও থামেনি রাজিবের পত্রিকা বিক্রি!

প্রকাশিত: ৩:২০ অপরাহ্ণ , মার্চ ৯, ২০২০

দুর্ঘটনায় পা হাড়ানোর পরেও থামেনি রাজিবের পত্রিকা বিক্রি!

চরফ্যাশন প্রতিনিধি:  জীবন যায় যাক তবুও বলে কবির ভাই পত্রিকাগুলো ঠিক মত রাখিয়েন। এর পরে আর হুশ নেই। হুশ হলেও বলে আমার পত্রিকা বিক্রি করে কে? আর একটু ভাল হলে হাসপাতাল বেড থেকে নেমে বলে পত্রিকা বিক্রি করতে হবে। আমার সব গ্রাহক নচেৎ ছুটে যাবে।

হাসপাতাল ছেড়ে দীর্ঘ দুই মাস ব্যাটারি চালিত আটো রিক্স যোগে গ্রাহকের কাছে পত্রিকা পৌছান। আর একটু ভাল হলে এখন স্কেচ উপর ভর দিয়ে পত্রিকা পুরো শহর ঘুরে ঘুরে বিক্রি করেন। নাম রাজিব। বাড়ি যে শহরের পত্রিকা বিক্রি করেন তার চেয়ে দুই থেকে তিন কিলোমিটার দুরে আলীগাও গ্রামে। রাজিব প্রতিবন্ধীও বটে। পিতার উপার্জীত একমাত্র রাজিব। সকাল ১০টায় শহরে আসে। রাত অনুমানিক ১টা বাসা ফিরে।

খাওয়া-দাওয়া সবই বাজারে বা কর্মস্থলে। মাথা গরম হলেই সেখানে পুকুর দেখতো সেখানে পোশাক পরিহিত অবস্থাই নেমে গোসল ছেড়ে নিতেন। গায়ে রেখে পোশাক শুকিয়ে যেত। হেটে দৌড়িয়ে দৌড়িয়ে পত্রিকা বিক্রি করারই ছিল তার অভ্যাস। আঞ্চলিক পত্রিকা বিক্রি শেষে দুপুর ১টা দিকে বাসষ্ট্যান্ড গিয়ে গাড়ির অপেক্ষা দাড়িয়ে থাকে। যখনি বাসগাড়ি আসে তখনী দৌড়াইয়া গিয়ে বাস থেকে জাতীয় পত্রিকার বান্ডিল নামায়।

প্রতিদিনের ন্যায় গত ৩নভেম্বর/১৮ইং তারিখে দুপুর ১টার দিকে নতুন বাসষ্ট্যান্ড থেকে পত্রিকার গাইড রিক্সযোগে গন্তব্য স্থান কাসেম হাজী সুপার মার্কেট নিয়ে আসার পথিমধ্যে হেলিবোর্ড নামক স্থানে পৌছলে পেছন থেকে আশা চরফ্যাশন শহরমুখী ব্যাটারি চালিত যাত্রী বোঝাই বোরাক তাঁর রিকসাটিকে ধাক্কা দেয়। এতে ওই পত্রিকা বিক্রেতা(হকার) রাজিব সড়কের মাঝখানে পড়ে গেলে ওই যাত্রী বোঝাই বোরাকটি তার পায়ের উপর দিয়ে চলে যায়। এতে হাটুর উপরের অংশ গুড়ি গুড়ি হয়ে যায়। স্থানীয়রা তাকে দ্রুত উদ্ধার করে প্রথমে চরফ্যাশন স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে সেখান থেকে তাঁর অবস্থা অসংখ্যা জনক দেখে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে বরিশাল শেরে বাংলা মেডিকেল কলেজ(হাসপাতালে) রেপার করেন। সেখান থেকে রাজধানীর পঙ্গু হাসপাতালে চিকিৎসা পুরোপুরি শেষ হতে না হতে পত্রিকা বিক্রি করতে ছুটে আসে আহত রাজিব। দীর্ঘদিন পত্রিকা বিক্রি বন্ধ হলেও তিনি এখন সেই আগের মতো পত্রিকা গ্রাহকের কাছে পৌছানোর চেষ্টা করছেন।


সিএনআই’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।