সোমবার, ১লা জুন, ২০২০ ইং

চুয়াডাঙ্গা ও আলমডাঙ্গায় ভোক্তা সংরক্ষণ অধিদপ্তরের অভিযান

প্রকাশিত: ১:১০ অপরাহ্ণ , মার্চ ২৬, ২০২০

চুয়াডাঙ্গা ও আলমডাঙ্গায় ভোক্তা সংরক্ষণ অধিদপ্তরের অভিযান
চুয়াডাঙ্গা প্রতিনিধিঃ জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের কর্মকর্তারা উচ্চমুল্যে দ্রব্য সামগ্রী বিক্রি  করার অভিযোগে চুয়াডাঙ্গা ও আলমডাঙ্গায় অভিযান চালিয়ে  তিন ব্যবসায়ী প্রতিষ্ঠানকে ৬৫ হাজার টাকা জরিমানা করেন।
জানা গেছে বুধবার সকাল হতে বিকাল ৪ টা পর্যন্ত চুয়াডাঙ্গা সদর ও আলমডাঙ্গা উপজেলায় নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রণ ও ভোক্তা অধিকার বিরোধী পরিচালনা করা হয়। এসময়  ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর, চুয়াডাঙ্গা কর্তৃক ভ্রাম্যমাণ অভিযান পরিচালনা করেন জেলা কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক জনাব সজল আহম্মেদ। এবং  উক্ত অভিযানে উপস্থিত ছিলেন জাতীয় নিরাপত্তা গোয়েন্দা সংস্থা (এনএসআই), চুয়াডাঙ্গার সহকারী পরিচালক জনাব লুতফুল কবির কনক। এ অভিযানে সরকারি চাউল নিলামে ক্রয় করে তা খুলে অন্যান্য কোম্পানির বস্তায় প্যাকেট করে উচ্চ মুল্যে বিক্রয়ের প্রমাণ পাওয়া যায়।
এমন অপরাধে চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলার মেসার্স চুয়াডাঙ্গা ট্রেডার্সকে ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইন-২০০৯ এর ৪০ এবং ৫০ ধারায় ৪০ হাজার  টাকা জরিমানা করা হয়। অপর দিকে এসময় একটি দোকানের বেশকিছু মেয়াদ উত্তীর্ণ পণ্য জব্দ করে নষ্ট করে দেওয়া হয়। পরবর্তীতে আলমডাংগা উপজেলার হাটবোয়ালিয়া বাজারে অভিযান পরিচালনা করা হয়। সেখানে চাউলের মুল্য তালিকা ঠিকঠাক প্রদর্শন না করা, ক্রয়কৃত চাউলের মেমো সংরক্ষণ না করা ও পন্যের মোড়কীকরণ বিধি লংঘন করার অপরাধে মেসার্স অপর্ণা খাদ্য ভান্ডারকে ২০ বিশ হাজার  টাকা এবং মেসার্স ইকলাস ট্রেডার্সকে ৫ হাজার  টাকা জরিমানা করা হয়।
এ বিষয়ে চুয়াডাঙ্গা জেলার জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের সহকারী পরিচালক সজল আহম্মেদ বলেন  বর্তমান করোনা সংকট মোকাবিলায় জনগন ও ব্যবসায়ীদের সচেতন হওয়ার পরামর্শ দেন। এবং  সরকারি সমস্ত বিধিনিষেধ মেনে চলার অনুরোধ করেন যাতে সবাই মিলে আমরা এই সংকটকালীন মুহূর্ত কাটিয়ে উঠতে পারি। এছাড়াও ব্যবসায়ীদের প্রতি আহবান করেন আপনারা দেশের এই সংকটময় মুহূর্তে মানবিক হোন। চিন্তা করুন দেশের দিনমজুর বা খেটে খাওয়া মানুষের কথা, যারা দিন আনে দিন খায়। ১০-১৫ দিন তারা তেমন কাজও করতে পারবেনা। তাদেরকে ন্যায্যমুল্যে খাওয়ানো আপনাদের ঈমানী দায়িত্ব।  সবাই সচেতন হোন অথবা সাবধান হয়ে যান।


সিএনআই’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।