বুধবার, ২৭শে মে, ২০২০ ইং

মাত্র ১৫ বছর বয়সেই শেষ হয়ে যেতে পারত রোনাল্ডোর ক্যারিয়ার!

প্রকাশিত: ২:৪১ অপরাহ্ণ , মে ১২, ২০২০

মাত্র ১৫ বছর বয়সেই শেষ হয়ে যেতে পারত রোনাল্ডোর ক্যারিয়ার!

স্পোর্টস ডেস্ক: আজ তিনি ফুটবলের মহাতারকা। কিন্তু মাত্র ১৫ বছর বয়সেই শেষ হয়ে যেতে পারত তার ক্যারিয়ার। হৃদযন্ত্রে অস্ত্রোপচার ধ্বংস করে দিতে পারত ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডোর খেলোয়াড়ি জীবন। খোদ সিআর সেভেনের মা দোলোরেস অ্যাভেইরো এ বিস্ময়কর তথ্য দিয়েছেন। ২০১২ সালে মাঠেই জ্ঞান হারান বোল্টন ওয়ান্ডারার্সের মিডফিল্ডার ফ্যাবরিস মুয়াম্বা। চটজলদি তাকে হাসপাতালে নেয়া হয়। ফুটবলারকে দেখে চিকিৎসকরা জানান, তার হৃদযন্ত্র ঠিকঠাকভাবে কাজ করছে না।

তড়িঘড়ি মুয়াম্বাকে অস্ত্রোপচারের টেবিলে নেন তারা। অবশেষে ছুরি-কাঁচির নিচ থেকে ফিরে আসেন তিনি। ফল অপারেশন শেষে সুস্থ হয়ে ওঠেন বোল্টন তারকা। তবে আর মাঠে নামতে পারেননি তিনি। সেই বছরই অবসর নিতে বাধ্য হন ইংলিশ ফুটবলার। একই আশঙ্কা ছিল রোনাল্ডোর ক্ষেত্রেও। হলে পর্তুগিজ সুপারস্টারের পায়ের জাদু দেখা থেকে বঞ্চিত হতেন বিশ্বের তাবৎ ফুটবলপ্রেমী। দোলোরেস বলেন, রোনাল্ডোর হৃদযন্ত্রে যে সমস্যা ছিল, তাতে অস্ত্রোপচার করতেই হতো। লেজার রশ্মির সাহায্যে তার ওই অংশ পুড়িয়ে দেন চিকিৎসকরা। যাতে আর সমস্যা না হয়।

তিনি বলেন, অস্ত্রোপচার হওয়ার আগে আমি ভীষণ শঙ্কিত ছিলাম। ছেলে কী আর কোনো দিন ফুটবল খেলতে পারবে? প্রশ্নটা আমাকে প্রতিনিয়ত তাড়া করত। কিন্তু ভাগ্য সহায় ছিল, তথাপি ঈশ্বর সঙ্গে ছিলেন। শেষ পর্যন্ত সবকিছু ঠিকঠাকভাবে হয়েছে।

দোলোরেস বলেন, কিছু দিন পরই অনুশীলনে ফিরেছিল রোনাল্ডো। তার অস্ত্রোপচার নিয়ে আমি চিন্তিত ছিলাম। কিন্তু সে মোটেও ভয় পায়নি। অবিশ্বাস্য হলেও সত্যি– অস্ত্রোপচারের পর আমার ছেলের গতি আরও বেড়েছে।


সিএনআই’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।