মঙ্গলবার, ৪ঠা আগস্ট, ২০২০ ইং

আশুলিয়ায় বাসে নারীকে ধর্ষণচেষ্টা, গ্রেপ্তার ৩

প্রকাশিত: ৬:০৪ অপরাহ্ণ , জুলাই ১৩, ২০২০

আশুলিয়ায় বাসে নারীকে ধর্ষণচেষ্টা, গ্রেপ্তার ৩
সাভার প্রতিনিধিঃ সাভারের আশুলিয়ায় কৌঁশলে ডেকে নিয়ে বাসে তুলে এক তরুণীকে (১৬) ধর্ষণের চেষ্টার অভিযোগে বাসচালকসহ তিন জনকে গ্রেপ্তার করেছেন পুলিশ। এঘটনায় ভুক্তভোগী থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে একটি মামলা দায়ের করেছেন। সোমবার দুপুরে গ্রেপ্তারকৃতদের আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন আশুলিয়া থানার পরিদর্শক (তদন্ত) জাবেদ মাসুদ।
গ্রেপ্তারকৃতরা হলো- কিশোরগঞ্জ জেলার বাজিদপুর থানার গজারিয়ার গ্রামের ফেরদৌসের ছেলে বাসচালক আরিফ (১৮), গোপালগঞ্জ জেলার কাশীয়ানি থানার মহির উদ্দিনের ছেলে সহিদুল ইসলাম (২৮) ও লক্ষীপুর জেলা সদর থানার যোগমেন গ্রামের কামরুল ইসলামের ছেলে সজীব (১৯)।
মামলার এজাহার সূত্রে জানা যায়, আশুলিয়ার ডেন্ডাবর আমিন মডেল টাউন এলাকার ভুক্তভোগী তরুনী ও  বাসচালক আরিফের মধ্যে বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক। গত ১০জুলাই রাতে ভুক্তভোগী ওই তরুণী তার এক বান্ধবীর সাথে আশুলিয়ার বাইপাইল এলাকায় অবস্থান করছিলেন। এসময় তার বন্ধু আরিফ ফোন করে তাকে বাসায় পৌঁছে দেওয়ার কথা বলে। পরে বাইপাইল ব্রীজের দক্ষিণ পাশে অপেক্ষারত অবস্থায় একটি শতাব্দী পরিবহনের খালি বাস চালিয়ে নিয়ে আসে আরিফ ও তার বন্ধু সহিদুল। এসময় বাসচালক আরিফ তার আরেক বন্ধু আসবে বলে ওই তরুণীকে বাসে উঠিয়ে অপেক্ষা করতে বলে। পরে আরিফ ও সহিদুলের সহযোগী সজিবসহ অজ্ঞাত কয়েক জন ওই বাসে উঠে বসে। এসময় আরিফসহ অন্যরা তাকে কুপ্রস্তাব দিয়ে ব্যর্থ হলে তাকে ধর্ষণের চেষ্টা চালায়। পরে তার চিৎকারে আশপাশের লোকজন ছুঁটে এসে তাকে উদ্ধার করে।
আশুলিয়া থানার পরিদর্শক (তদন্ত) জাবেদ মাসুদ জানান, বাসে ওই তরুনীকে ধর্ষণচেষ্টার অভিযোগে থানায় একটি মামলা দায়ের হয়েছে। এঘটনায় অভিযুক্ত তিন জনকে গ্রেপ্তারের পর আজ দুপুরে আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে। একই সাথে ভুক্তভোগীকে স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের ওয়ানস্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে প্রেরণ করা হয়েছে বলেও জানান তিনি।


সিএনআই’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।