১৭, আগস্ট, ২০১৯, শনিবার | | ১৫ জ্বিলহজ্জ ১৪৪০

সাংবাদিক মুশফিককে ঢাকায় প্রেরণ

প্রকাশিত: ১১:১৭ অপরাহ্ণ , আগস্ট ৬, ২০১৯

সাংবাদিক মুশফিককে ঢাকায় প্রেরণ

মোহনা টেলিভিশনের সিনিয়র স্টাফ রিপোর্টার মুশফিকুর রহমানকে ঢাকায় পাঠানো হয়েছে। মঙ্গলবার রাত ৮টার দিকে রাজধানীর গুলশান থানা পুলিশের উপ-পরিদর্শক (এসআই) জাকির হোসেন, মুশফিকুর রহমানের বড় ভাই ও মোহনা টেলিভিশনের বার্তা সম্পাদক শহিদুল হক ইমরানের কাছে তাকে হস্তান্তর করা হয়। পরে তারা মোহনা টেলিভিশনের গাড়িতে করে ঢাকার উদ্দেশে রওনা হন।

এর আগে মঙ্গলবার ভোরে সুনামগঞ্জ সদর উপজেলার লক্ষ্মণশ্রী ইউনিয়নের গৌবিনপুর এলাকার একটি মসজিদ থেকে মুশফিকুর রহমানকে উদ্ধার করে পুলিশ। পরে তাকে সুনামগঞ্জ সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

এ ব্যাপারে মোহনা টেলিভিশনের বার্তা সম্পাদক শহিদুল হক ইমরান বলেন, আমরা খুব ভাগ্যবান আমাদের সাংবাদিককে ফিরে পেয়েছি। আমি সুনামগঞ্জের সকল মানুষের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানাচ্ছি। তাছাড়া ধন্যবাদ জানাচ্ছি পুলিশ প্রশাসন ও চিকিৎসকদের। মুশফিকের শারীরিক অবস্থা দুর্বল ও তিনি একটু ভয়ে রয়েছেন। আমরা তাকে ঢাকায় নিয়ে উন্নত চিকিৎসা করাবো।

বিদায়কালে সাংবাদিক মুশফিকুর রহমান সুনামগঞ্জের সকল গণমাধ্যমকর্মী ও মোহনা টেলিভিশনের জেলা প্রতিনিধি কুলেন্দু শেখর দাশের কাছে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন।

উল্লেখ্য, গত শনিবার সন্ধ্যার পর থেকে নিখোঁজ ছিলেন সাংবাদিক মুশফিকুর রহমান। ঢাকার গুলশানে মামার সঙ্গে দেখা করে বেরিয়ে যাওয়ার পর থেকে তার খোঁজ পাওয়া যাচ্ছিল না বলে অভিযোগ করে তার পরিবার। এ ঘটনায় শনিবার রাতেই গুলশান থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেন তার মামা এজাবুল হক।

মুশফিকুর রহমানের পরিবারের দাবি, গত ২১ জুলাই একটি অজ্ঞাত নম্বর থেকে তাকে প্রাণনাশের হুমকি দেয়া হয়েছিল। ২২ জুলাই জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে রাজধানীর পল্লবী থানায় জিডি করেছিলেন তিনি।


সিএনআই’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।