১৯, সেপ্টেম্বর, ২০১৯, বৃহস্পতিবার | | ১৯ মুহররম ১৪৪১

ফুটবলেও আফগানদের কাছে হারলো বাংলাদেশ

প্রকাশিত: ১০:৫১ পূর্বাহ্ণ , সেপ্টেম্বর ১১, ২০১৯

ফুটবলেও আফগানদের কাছে হারলো বাংলাদেশ

দুশানবেতে ২০২২ বিশ্বকাপের বাছাইয়ের দ্বিতীয় পর্বের ম্যাচে আফগানরা ১-০ গোলে হারিয়েছে বাংলাদেশকে। ফিফা র‌্যাংকিংয়ে এগিয়ে থাকা আফগানিস্তান শুরু থেকে চাপে রাখে বাংলাদেশকে। তাদের আক্রমণের তোপে বাংলাদেশের রক্ষণকে প্রায়ই খেই হারাতে হয়েছে। শুরু থেকে রক্ষণ জমাট করে খেললেও হার এড়াতে পারেনি জামাল ভূঁইয়ারা।

গতকাল মঙ্গলবার এশিয়া অঞ্চলের বিশ্বকাপ বাছাইয়ের ‘ই’ গ্রুপের ম্যাচে শুরুতে থেকেই আক্রমণাত্মক ছিল আফগানরা। বিপরীতে রক্ষণ সামলাতেই ব্যস্ত থাকতে হয়েছে বাংলাদেশকে। যদিও শুরুর দিকে পরিষ্কার কোনও সুযোগ তৈরি করতে পারেনি ‍আফগানিস্তান। বাংলাদেশের রক্ষণের সামনে বারবার আটকে যেতে হচ্ছিল তাদের।

তবে ২৭ মিনিটে বাধার দেয়াল আর টিকেনি। সেট পিস থেকে লক্ষ্যভেদ করে এগিয়ে যায় আফগানিস্তান। ফ্রি-কিক থেকে আফগান অধিনায়ক ফারশাদ নূরের হেড গোলরক্ষক রানা ঝাঁপিয়েও রক্ষা করতে পারেননি। বল তার হাতে লাগলেও লাভ হয়নি, জড়িয়ে যায় জলে।

১-০ গোলে পিছিয়ে থেকে দ্বিতীয়ার্ধ শুরু করা বাংলাদেশ একাদশে দুটি পরিবর্তন আনে। রবিউল হাসান ও মাহবুবুর রহমান সুফিল মাঠে নামলেও লাল-সবুজ জার্সিধারীদের সমতায় ফেরাতে পারেননি। একাধিক আক্রমণ হয়েছে ঠিকই, কিন্তু আফগানিস্তানের গোলরক্ষককে বড় পরীক্ষায় ফেলতে পারেননি কেউই।

অবশ্য প্রথমার্ধের চেয়ে দ্বিতীয়ার্ধে রক্ষণ ছেড়ে আক্রমণে গিয়েছিল বাংলাদেশ। জামালদের সবচেয়ে ভালো দুটি সুযোগ আসে ৭৯ ও ইনজুরি টাইমে। দুইবারই সুযোগ তৈরি করেছিলেন নাবীব নেওয়াজ জীবন। প্রথমটিতে ফ্রি-কিক থেকে হেড করতে ব্যর্থ হন, আর ইনজুরি টাইমে বলে পা ছোঁয়াতে পারেননি। বিপরীতে আফগানরা একাধিক সুযোগ পেয়েও ব্যবধান বাড়াতে ব্যর্থ হয়েছে।

এরপরও ৩ পয়েন্ট নিয়ে মাঠ ছাড়তে কোনও অসুবিধা হয়নি আফগানদের। তাতে বাংলাদেশের বিপক্ষে জয়ের ধারা সচল রাখলো তারা। সবশেষ ২০১৫ সালে সাফ ফুটবলে আফগানদের বিপক্ষে ৪-০ গোলে হেরেছিল বাংলাদেশ। এবার অন্তত বড় ব্যবধানে হারতে হয়নি, এটাই হয়তো বাংলাদেশের সান্ত্বনা!

বিশ্বকাপ বাছাইয়ে ‘ই’ গ্রুপে বাংলাদেশ দ্বিতীয় ম্যাচ খেলবে শক্তিশালী কাতারের বিপক্ষে। আগামী ১০ অক্টোবর বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে হবে ম্যাচটি।


সিএনআই’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।