১৯, সেপ্টেম্বর, ২০১৯, বৃহস্পতিবার | | ১৯ মুহররম ১৪৪১

যৌন হেনস্তাকারীকে আশ্রয় দিচ্ছেন আমির খান

প্রকাশিত: ২:১২ অপরাহ্ণ , সেপ্টেম্বর ১১, ২০১৯

যৌন হেনস্তাকারীকে আশ্রয় দিচ্ছেন আমির খান

বলিউডে শুধু অভিনেতা হিসেবেই নয়, একজন সমাজ সচেতন মানুষ হিসেবেও জনপ্রিয় আমির খান। প্রায় সময়ই দেখা যায় সমাজের জন্য নানা রকম ইতিবাচক ভাবনা তিনি প্রকাশ করেন। দেশ ও দশের ভালো হয় এমন অনেক কিছুর সঙ্গেই তিনি জড়িত। তাহলে এমন দায়িত্ববান একজন অভিনেতা কেমন করে অপরাধীকে আশ্রয় দেন। আমির খানের প্রতি এই প্রশ্নটাই ছুঁড়ে দিয়েছেন ‘আশিক বানায়া আপনে’ ছবির অভিনেত্রী তনুশ্রী দত্ত।

তার আপত্তি যৌন হেনস্থায় অভিযুক্ত সুভাষ কাপুরের সঙ্গে আমিরের অভিনয় করা নিয়ে। কিছুদিন আগেই আমির জানান, যৌন হেনস্থায় অভিযুক্ত সুভাষ কাপুরের সঙ্গে তিনি যে কাজ না করার সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন, তা পুনর্বিবেচনা করে দেখবেন। আমিরের ঘোষণার পরই অভিনেতার বিরুদ্ধে মুখ খুললেন তনুশ্রী।

মিড-ডেকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে তনুশ্রী বলেন, ‘নিজের সিদ্ধান্ত থেকে সরে এসে আমির এই MeToo মুভমেন্টটাকেই হালকা করে দিলেন। আমির যদি জীবিকা, আয় নিয়ে স্বচ্ছভাবে ভাবতেন তাহলে মেয়েটাকে কাজের সুযোগ দিতেন।’

তনুশ্রী প্রশ্ন তোলেন, ‘ওই মেয়েটাকেও বিভিন্ন মানসিক ও সামাজিক চাপের মধ্যে দিয়ে যেতে হচ্ছে। তাহলে কি সমবেদনা শুধু পুরুষদেরই প্রাপ্য? কোনো একজন মহিলা যদি হেনস্থার শিকার হন, ট্রমার মধ্যে দিয়ে দিন কাটান, তখনও বলিউডের একজনও কি তার চিন্তায় রাতে না ঘুমিয়ে কাটান? যদি আমির সুভাষ কাপুরকে কাজে নেওয়ার কথা ভাবতে পারেন, তাহলে তিনি ওই মহিলাকে কেন কাজ দেওয়ার কথা উনি ভাবলেন না? উনার মতো অভিনেতার ব্যক্তিত্বের সঙ্গে এটা যায় না।’

গত বছর MeToo মুভমেন্টকে সমর্থন করে আমির যখন ‘মগুল’ ছবিটি থেকে বেরিয়ে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন তখন তনুশ্রী দত্ত তার প্রশংসায় পঞ্চমুখ হয়েছিলেন। তবে সম্প্রতি, হিন্দুস্থান টাইমসকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে আমির জানান, যৌন হেনস্থা অভিযুক্তদের সঙ্গে কাজ না করার যে সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন, সেই সিদ্ধান্ত পুনর্বিবেচনা করে দেখার কথা ভেবেছেন তিনি এবং তার স্ত্রী কিরণ রাও। আর তাতেই চটেছেন তনুশ্রী। সমালোচনা হচ্ছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমেও।


সিএনআই’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।