১৬, সেপ্টেম্বর, ২০১৯, সোমবার | | ১৬ মুহররম ১৪৪১

দিনে দুপুরে গৃহবধূকে কুপিয়ে হত্যা করে ডাকাতি

প্রকাশিত: ৫:৫৬ অপরাহ্ণ , সেপ্টেম্বর ১১, ২০১৯

দিনে দুপুরে গৃহবধূকে কুপিয়ে হত্যা করে ডাকাতি

নওগাঁ শহরের পার নওগাঁ মহল্লার একটি বাসায় দিনে দুপুরে গৃহবধূকে কুপিয়ে হত্যার পর ডাকাতির ঘটনা ঘটেছে। এ সময় ডাকাতরা টাকা-স্বর্ণালংকার লুট করে নিয়েছে।

স্থানীয়রা জানান, পার নওগাঁ ধোপা পাড়া মহল্লায় নিজ বাড়িতে দীর্ঘদিন ধরে ব্যাবসায়ী ইসরাইল ও তার স্ত্রী ফাহিমা বসবাস করে আসছিলেন। বুধবার দুপুরে বাড়ির কাজের মেয়ের চিৎকার শুনে প্রতিবেশীরা ছুটে গিয়ে বাসার ভেতর গৃহবধূ ফাহিমার রক্তাক্ত লাশ পড়ে থাকতে দেখে পুলিশকে খবর দেয়। ঘটনার সময় নিহতের স্বামী শহরের সোনালী ব্যাংক রোডে ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে ছিলেন।

নিহতের স্বজনদের অভিযোগ- দিনে দুপুরে ডাকাতরা ফাহিমার মাথায় আঘাত করে হত্যার পর বাড়ি থেকে টাকা ও স্বর্ণালংকার লুট করে নিয়ে গেছে। এ বিষয়ে পুলিশের কেউ এখনো কোন কিছু নিশ্চিত করে বলেননি। তবে ঘটনা অধিক গুরুত্বের সাথে তদন্ত করা হচ্ছে বলে দাবি করেছেন তারা।

স্বানীয় পৌর কাউন্সিলর আবুল কালাম আজাদ জানান, নিহত গৃহবধূ ও ইসরাইল নিঃসন্তান দম্পতি। মহল্লায় তারা খুব ভাল মানুষ হিসেবে পরিচিত। সম্পদ লুট করতেই এই ঘটনা ঘটে থাকতে পারে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

নিহতের স্বামী ইসরাইল হোসেন বাংলাদেশ জার্নালকে জানান, বাসায় ব্যবসার লেনদেনের বেশ কিছু পরিমাণ টাকা ও স্বর্ণালংকার ছিলো। কি পরিমাণ লুট হয়েছে তা এখনই বলা যাচ্ছে না।

নওগাঁর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মুহা. রাশিদুল হক বলেন, ঘটনার পর পরই মৃতদেহ উদ্ধার ও ঘটনাস্থল পরিদর্শন করা হয়েছে। এখনো কোন ক্লু পাওয়া যায়নি। ধারণা করা হচ্ছে টাকা ও মূল্যবান সম্পদ লুট করতেই খুনের ঘটনা ঘটেছে। ঘটনাটি গুরুত্বের সাথে খতিয়ে দেখা হচ্ছে।


সিএনআই’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।