১৯, অক্টোবর, ২০১৯, শনিবার | | ১৯ সফর ১৪৪১

অস্ত্র ও মাদকসহ ওলামা লীগের সভাপতি মনির আটক

প্রকাশিত: ২:৫৮ অপরাহ্ণ , অক্টোবর ৯, ২০১৯

অস্ত্র ও মাদকসহ ওলামা লীগের সভাপতি মনির আটক

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি: ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় দেশীয় অস্ত্র ও মাদকসহ মনির খান (৪৭) নামে এক ভণ্ড পীর ও তার সহযোগী মো. মাসুদ উল্লাকে আটক করা হয়েছে। মঙ্গলবার রাত ৮টা থেকে ১১টা পর্যন্ত সদর উপজেলার ভাদঘুর এলাকার একটি ট্রাভেল এজেন্সিতে জাতীয় নিরাপত্তা গোয়েন্দা (এনএসআই) ও জেলা মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদফদরের সদস্যরা যৌথভাবে অভিযান চালিয়ে তাদের আটক করে।

মনির ভাদুঘর এলাকার শফিকুল ইসলামের ছেলে ও মাসুদ একই এলাকার মো. সানাউল্লার ছেলে। মনির নিজেকে একজন পীর ও জেলা ওলামা লীগের সভাপতির পরিচয় দিয়ে নানা অপরাধমূলক কর্মকাণ্ড করতেন।

অভিযানে নেতৃত্বে দেন এনএসআইয়ের ব্রাহ্মণাবড়িয়া জেলার উপ-পরিচালক মো. আবু নায়হান ও মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদফতরের ব্রাহ্মণবাড়িয়া সার্কেলের পরিদর্শক (ইন্সপেক্টর) মো. শরীফুল ইসলাম।

তিনি জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ভাদঘুর এলাকার গ্লোবাল ভিশন ট্রাভেল এজেন্সির অফিসে এনএসআই ও মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদফতর যৌথভাবে অভিযান পরিচালনা করে। অভিযান চলাকালে দুটি কিরিচ, একটি রামদা, দুই পিস ইয়াবা ট্যাবলেট, একশ গ্রাম গাঁজা, এক বোতল মদ, ইয়াবা ও গাঁজা সেবনের সরঞ্জামসহ ভণ্ড পীর মনির খান ও তার সহযোগী মাসুদকে আটক করা হয়। পরে ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে আটক দুইজনকে তিন মাস করে কারাদণ্ড দেন জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. জুবায়ের হোসেন।


সিএনআই’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।