১৬, নভেম্বর, ২০১৯, শনিবার | | ১৮ রবিউল আউয়াল ১৪৪১

বগুড়ায় করতোয়া নদীতে টাকা ভেসে যাওয়া তথ্য গুজব

প্রকাশিত: ১১:৫৬ পূর্বাহ্ণ , অক্টোবর ১৫, ২০১৯

বগুড়ায় করতোয়া নদীতে টাকা ভেসে যাওয়া তথ্য গুজব
বগুড়া প্রতিনিধি: বগুড়ায় করতোয়া নদী দিয়ে টাকা ভেসে যাচ্ছে এমন গুজবে রাতের অন্ধকারে শত শত মানুষের ভিড় জমে নদীর তীরে। কিন্তু কারো চোখেই পড়েনি টাকা ভেসে যাওয়ার দৃশ্য। তবে শত শত মানুষের ভিড়ে এক যুবক কিছু ভেজা টাকা নিয়ে হাজির হলে মানুষের জিজ্ঞাসাবাদে ধরা পড়ে এটি তার সাজানো নাটক।
অনুসন্ধানে জানা যায়, একদল পকেট মার গুজব ছড়িয়ে লোকজন জড়ো করেন তাদের কাজ হাসিল করার জন্য। কিন্তু পুলিশের উপস্থিতির কারণে পকেট মারের দল সটকে পড়ে। এর আগে উৎসুক জনগণের অনেকের পকেটই ফাঁকা হয়ে যায়।
জানা গেছে, সোমবার (১৪ অক্টোবর) রাত ১০টার পর শহরে গুজব ছড়িয়ে পড়ে, করতোয়া নদী দিয়ে টাকা ভেসে যাচ্ছে। মুহূর্তের মধ্যে শত শত মানুষ ভিড় জমায় ফতেহ আলী মোড়ে করতোয়া নদীর ব্রিজে। সংবাদ পেয়ে অসংখ্য সংবাদকর্মী ও পুলিশ সদস্যরা সেখানে উপস্থিত হন। কিন্তু প্রত্যক্ষদর্শী কাউকে পাওয়া যায়নি। সবাই বলেন, অনেকেই নদী থেকে টাকা তুলে নিয়ে গেছে বলে শুনেছেন। এরই মধ্যে এক যুবক কয়েকটি ১০ টাকা এবং দুটি ১০০ টাকার ভেজা নোট নিয়ে হাজির হন।
কালু নামের ওই যুবক জানান, নদী দিয়ে ভেসে যাওয়া টাকাগুলো সাঁতরে তুলেছেন তিনি। কিন্তু টাকা দেখে উপস্থিত লোকজনের সন্দেহ হলে ওই যুবক কৌশলে সটকে পড়েন। এরই মধ্যে অনেকেই পকেট সামলানো শুরু করলে পুলিশ তৎপর হয়ে উঠলে পকেট মারের দলও পালিয়ে যায়। তবে গুজব ছড়িয়ে পড়ে শহরজুড়ে।
বগুড়া সদর থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) সিএনআই-কে বলেন, ‘ঘটনাটি গুজব। টাকা কেউ ইচ্ছাকৃত ফেলে দিয়ে আবার সেগুলো কুড়িয়ে এনে গুজব রটিয়েছেন।


সিএনআই’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।