বৃহস্পতিবার, ৯ই জুলাই, ২০২০ ইং

দিনাজপুরে বিনামূল্যে স্বাস্থ্য সেবা ও ঔষধ বিতরণ করলো বাংলাদেশ সেনাবাহিনী

দিনাজপুর প্রতিনিধি: জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষ্যে বাংলাদেশ সেনাবাহিনী দিনাজপুর জেলায় গর্ভবতী মা ও শিশুদের মাঝে অবারো বিনামূল্যে স্বাস্থ্য সেবা ও ঔষধ বিতরণ করছেন। আজ বুধবার সকাল থেকে বিকাল পর্যন্ত সারাদিন দিনাজপুর সদর উপজেলায় এ কার্যক্রম পরিচালনা করা হয়। ৬৬ পদাতিক ডিভিশনের ১৬ পদাতিক ব্রিগেডের তত্ত্বাবধানে ৪ হর্স এবং ৪৫ ফিল্ড এ্যাম্বুলেন্স এর যৌথ ব্যস্থাপনায়  মেডিকেল  ক্যাম্পেইন, করোনার নমুনা সংগ্রহ ও ঔষুধ বিতরণসহ প্রায় তিন শতাধিক গর্ভবতী মা ও শিশুদের মাঝে সেবা প্রদান করা হয়। দিনাজপুর জেলার সদর উপজেলায় বীর উত্তম শহীদ মাহবুব সেনানিবাস এর ৪৫ ফিল্ড এ্যাম্বুলেন্স এর তত্ত্ধসঢ়;বাবধানে সিএমএইচ বিইউএসএমএস এবং সিএমএইচ সৈয়দপুর এর বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকগণ কর্তৃক সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে ৪ হর্সের সহযোগিতায় প্রয়োজনীয় স্বাস্থ্যবিধি মেনে গর্ভবতী মা এবং শিশুদের স্বাস্থ্য সেবা প্রদান করা হয়েছে। চিকিৎসা ক্যাম্পের নেতৃত্ব দেন ৪৫ ফিল্ড এ্যাম্বুলেন্সের অধিনায়ক লেঃ কর্ণেল মোঃ হাসমত উল্লাহ খান। চিকিৎসকদের মধ্যে ছিলেন শিশুরোগ বিশেষজ্ঞ লেঃ কর্ণেল আফরোজা আখতার, স্ত্রীরোগ ও ধাত্রী বিদ্যা বিশেষজ্ঞ মেজর রাফিয়া সুলতানা, মেডিকেল অফিসার ক্যাপ্টেন দিলরুবা ইয়াছমিন। অধিনায়ক, ৪৫ ফিল্ড এ্যাম্বুলেন্স লেঃ কর্ণেল মোঃ হাসমত উল্লাহ খান বলেন “আজ গর্ভবতী মহিলাদের বিনামূল্যে চিকিৎসা সেবা, ঔষধ বিতরণ ও প্রয়োজনীয় উপদেশ সম্বলিত লিফলেট প্রদান করা হয়। গর্ভবতী মায়েদের করোনা লক্ষণ অনুযায়ী পরীক্ষার জন্য নমুনা সংগ্রহ করে সিএমএইচ হতে পরীক্ষা সম্পন্ন করে আগামীকাল করোনা পরীক্ষার ফলাফল জানিয়ে দেয়া হবে। এছাড়াও শিশুরোগ বিশেষজ্ঞ কর্তৃক শিশুদের চেকআপসহ প্রয়োজনীয় ঔষধ প্রদান করা হয়। সবশেষে সকল রোগীদের চিকিৎসা দেওয়ার পাশাপাশি করোনা ভাইরাস হতে কিভাবে নিজেকে এবং নিজের পরিবারকে রক্ষা করা যায় সে ব্যাপারে প্রয়োজনীয় পরামর্শ প্রদান করা হয়”। বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর ৬৬ পদাতিক ডিভিশনের ৪ হর্স ইউনিটের ক্যাপ্টেন মোঃ ইসতিয়াজ আরাফাত বলেন, “বর্তমানে হাসপাতালগুলোতে করোনা রোগের সংক্রমন হওয়ার ঝুঁকি রয়েছে বিধায় স্বাস্থ্যসেবা গ্রহন করতে গিয়ে গর্ভবতী মা ও শিশুদের করোনা আক্রান্ত হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। তাদের নিরাপদ স্বাস্থ্যসেবা প্রদান করার জন্য বাংলাদেশ সেনাবাহিনী প্রধান এই বিনামূল্যে স্বাস্থ্যসেবা ও ঔষধ বিতরণ দেশের সব অঞ্চলে ছড়িয়ে দেয়ার জন্য নির্দেশ প্রদান করেছেন। আজ ৪৫ ফিল্ড এ্যাম্বুলেন্স দিনাজপুরে আমাদের এই কার্যক্রম পরিচালনা করছে”। এছাড়াও ৪ হর্স, করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ রোধে ১৬ পদাতিক ব্রিগেডের অধীনে সামাজিক দূরত্ব কার্যকর, সচেতনতা সৃষ্টি, বাজার মনিটরিং এবং দুস্থ মানুষদের বিভিন্ন ধরণের সাহায্য প্রদানে নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছে। ভবিষ্যতেও দেশের যেকোন দূর্যোগকালীন সময়ে বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর ৬৬ পদাতিক ডিভিশনের সকল সদস্যগণ জনগণের পাশে থেকে কাজ করে যাবে বলে অঙ্গীকারবদ্ধ।