সোমবার, ২৫শে মে, ২০২০ ইং

মা আজ কত দুরে

মা আজ কত দুরে- গুলশান আরা রুবী: 
মা আজ কত দুরে
গুলশান আরা রুবী
মা তুমি আজ কত দূরে
সাত সাগর তের নদীর ওপাড়ে।
মাগো কত যে তোমায় মিস করি
প্রতি মিনিটে,প্রতি সেকেন্ড কেবল খোদা তায়ালা জানে মনের খবর।
যখন তোমার বুকে মাথা রেখে নিদ্রায় আচ্ছন্ন হতাম
তখন মনে হতো স্বর্গের বিছানায় আমি শুয়ে থাকতাম।
তোমায় মনে পরে মাগো মনে পরে প্রতি ক্ষণেক্ষণে ,
এত দূরে আছি মাগো আজ আমি
মন চাইলেও দিতে পারিনি একটু আদর সোহাগ তোমায় ,
কেবল আছি আমি বঞ্চিত তোমার আদর, মমতা থেকে।
প্রবাসে এসে সব হারিয়েছি মা সেই তেরো বছরের তোমার ছোট্ট মেয়েটি,
কত যে চোখের জলে ভেসেছে আমার আঁখি দুটি ।
জানে শুধু আমার এ দুটি নয়ন খানি
কেবল তোমায় কাছে পেতে মন জানি ,
যে দিন চলে যায় সে কি আর ফিরে আসে মাগো?
মন কেবল শুধু তোমায় কাছে পেতে চায়।
তুমি গর্ভধারিনী মা
তুমি পৃথিবীর অমূল্য রতন ,
সারাজীবন তোমার চরণে সেবা করলে জানি শোধ হবে না এক ফোঁটা দুধের ঋণ।
মাগো আজ তোমার কাছে থাকলে তোমায় করতাম যত্ন
আদর দিয়ে সোহাগ দিয়ে করতাম লালন।
যেমন তুমি আমায় করেছিলে লালন আমি ভূমিষ্ট হওয়ার পর।
 তবে,
খোদার কাছে দোয়া করি মাগো ভালো থেকো সারাটি জীবন।
নীরবে চোখের জল ফেলি উড়তে পারি না বলে ,
ডানা ভাঙা পাখির মত জীবন চলছে অবিরত।
সময় বড় নিষ্ঠুর মাগো এ ভুবনে
কেমন করে চলে যায় বন্ধি খাঁচার ভিতর।
মায়ের মুখের মধুর বাণী
সোনার কথন জানি ,
কবে যাব দেশে আমি
দেখবো কবে মুখ খানি।
প্রাণ জুড়িয়ে হব ধন্য
আমার মায়ের জন্য।
মায়ের মুখের মৃষ্টি হাসি
আমি ভীষণ ভালো বাসি,
শ্রদ্ধা ভক্তি জানাই মাগো হৃদয় মম তরে
আজ দূর প্রবাস থেকে দোয়া করি মাগো ভালো থেকো সুস্থ থাকো দীর্ঘায়ু হও তুমি।